ঢাকা৫ই মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ২৩শে শাবান, ১৪৪৫ হিজরি ২১শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থ বানিজ্য
  2. আইন আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. আবহাওয়া
  5. ইসলাম
  6. এভিয়েশন
  7. ক্যাম্পাস
  8. খেলা
  9. জব মার্কেট
  10. জাতীয়
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দেশবাংলা
  13. বিনোদন
  14. রাজনীতি
  15. লাইফস্টাইল
বিজ্ঞাপন
আজকের সর্বশেষ সবখবর

মাছুম কামালের কয়েকটি কবিতা

জনবার্তা প্রতিবেদন
ডিসেম্বর ৭, ২০২৩ ৪:৪৭ অপরাহ্ণ
Link Copied!

ডাকিনীর সঙ্গে
আমারে আমি বেচে দিতে চেয়েছি বিবিধ পন্থায়;
তবু, কেমন করে যেন অবিক্রিত রয়ে গেলাম।
মূল্যহীন যেনবা, পঁচা সবজিটি বাজারের।
একটা সংসার আমারও হবে কোনোদিন এমন দুঃসাহসও তো দেখালাম কুমিরভরা গাঙে,
এখন আমার স্বপ্ন কাচের মতো ভেঙে চৌচির।
আর, নত হয়ে গেছে ‘চির উন্নত মম শির।’
প্রায়শ্চিত্ত করি, এক রক্ত পিপাসু
ডাকিনীর
পাশে
শুয়ে থাকি এখন—
ঘুমের ভেতর যে আমাকে ঠেলতে-ঠেলতে পাহাড়ের নিচে গিরিখাতে ফেলে মারতে চায়।

নির্ভার
যেমন নির্ভার হতে চাই, গাছালিতে বয়ে যাওয়া সকালের নির্মল হাওয়ার মতো
আমি তো হতে পারি না হায়;
নির্ভার; আমি তো শুধুই অসহায়;
মৃত্যু ছাড়া আর কে দিতে পারে এমন নির্ভরতা আমায়?
খোদা আমাকে সান্ত্বনা দেন; তিনি বলেন—
‘আমি জানি তারা যা বলে, তাতে তোমার অন্তরটা দুমড়ে-মুচড়ে যায়!’

কান্নার চিহ্ন
আমি যেসব কবিতা লিখি, কাঁদতে-কাঁদতে;
সেখানে বিরহ থাকে, অনেক-অনেক পেইন
রৌদ্রের কিরণ থাকে; কখনো প্রচুর রেইন
আর সব তাচ্ছিল্য
অপমান
অবহেলা
নতমুখ
এসব অলংকার তো থাকেই
শুধু আমার চোখের পানি ..
কর্পূরের মতো কোথাও তার চিহ্ন থাকে না।